অফিস সহায়ক এর পদোন্নতি - অফিস সহায়ক এর পেনশন কত

আজকে আপনাদের জানাবো অফিস সহায়ক এর পদোন্নতি এবং অফিস সহায়ক এর পেনশন কত এ বিষয় সহ অফিস সহায়ক চাকরির সকল তথ্য। যারা অফিস সহায়ক পদে চাকরি করতে চাচ্ছেন আজকের পোস্টটি তাদের জন্য অনেক উপকারী হবে।
অফিস সহায়ক এর পদোন্নতি-অফিস সহায়ক এর পেনশন কত

তাই চলুন নিচের অংশ থেকে বিস্তারিত ভাবে জেনে নেওয়া যাক অফিস সহায়ক এর যোগ্যতা বেতন সহ বিভিন্ন রকম বিস্তারিত তথ্য। মনোযোগ দিয়ে প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত কোন আশা করছি উপকারে আসবে। 

পোস্ট সূচিপত্রঃ অফিস সহায়ক এর পদোন্নতি - অফিস সহায়ক এর পেনশন কত

অফিস সহায়ক এর পদোন্নতি

অফিস সহায়কের পদোন্নতি এটা বিভিন্ন চাকরির ক্ষেত্রে বিভিন্ন রকম হয়ে থাকে। কেউ যদি অফিস সহায়ক পদে যোগদান করার পরে ভালো যোগ্যতা বা দক্ষতা অর্জন করতে পারে তাহলে তাকে চতুর্থ পদ থেকে তৃতীয় পদে পদোন্নতি দেওয়া হয়ে থাকে। তবে পদোন্নতির জন্য বিভিন্ন দপ্তরের পদোন্নতি বিধিমালা ও ভিন্ন ভিন্ন হয়ে থাকে। 

অফিস সহায়ক থেকে পদোন্নতি পাওয়ার জন্য দাপ্তরিক কাজের অভিজ্ঞতা দেখাতে হবে। সেই সাথে শিক্ষাগত যোগ্যতা ভালো থাকতে হবে, কম্পিউটার পরিচালনায় পারদর্শী হতে হবে, কম্পিউটারে টাইপিং স্পিড প্রতি মিনিটে বাংলা এবং ইংরেজিতে ২০ গতিতে থাকতে হবে। এবং পদোন্নতি পাওয়ার জন্য চাকরি স্থায়ী থাকতে হবে। 

আরো পড়ুন: বিসিএস পরীক্ষা কত বছর পর পর হয়

তাহলে অফিস সহায়ক থেকে পদোন্নতি পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। পদোন্নতি পাওয়ার এক বছর পর্যন্ত কর্মী শিক্ষনাবিশ হিসেবে গণ্য করা হবে। এবং এই এক বছরে যদি সে কর্মী যোগ্যতা বিবেচিত না হয় তাহলে তাকে পূর্বের পদে আবারো বহাল করা হবে। তারপরেও আপনারা এই বিষয়ে সরাসরি অফিস থেকে জানার চেষ্টা করবেন। 

অফিস সহায়ক এর পেনশন কত

একজন অফিস সহায়কের পেনশন তার পদ এবং কোন সেক্টরে জব করে সেটার উপর নির্ভর করে নির্ধারণ করা হয়ে থাকে। তবে বাংলাদেশ সরকারের প্রদত্ত তথ্য মতে জানা গেছে একজন অফিস সহায়ক এর সর্বনিম্ন পেনশন হতে পারে ৬০০০ টাকা। আবার বিভিন্ন চাকরির বিভিন্ন রকম পেনশন হয়ে থাকে তাই আপনি কোন চাকরি করছেন সেটা আমাদের জানিয়ে দিন আমরা আপনাকে সেই চাকরির সঠিক পেনশন কত সেটা জানিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করব। 

অফিস সহায়ক এর যোগ্যতা

অফিস সহায়ক জবের জন্য শিক্ষাগত যোগ্যতা হিসেবে মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট অর্থাৎ এসএসসি পাস হতে হবে। তবে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞপ্তি নীতিমালা অনুযায়ী অষ্টম শ্রেণী পাস করলেও অফিস সহায়ক পদে চাকরি পাওয়া যেতে পারে তবে সেগুলো বেসরকারি প্রতিষ্ঠান হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে। তাই কেউ যদি সরকারি অফিস সহায়ক পদে চাকরি নিতে চায় তাহলে অবশ্যই এস এস সি বা সমমানের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে হবে ও সার্টিফিকেট থাকতে হবে। 

অফিস সহায়ক এর কাজ কি

অফিস সহায়ক পদে চাকরি পাওয়ার পরে অফিসে গিয়ে প্রতিদিন বিভিন্ন রকম কাজ করতে হয় সেই কাজগুলো হলোঃ

  • অফিস সব সময় পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখা।
  • অফিসে থাকা আসবাবপত্র পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন এবং গুছিয়ে রাখা।
  • অফিসের সকল ফাইলপত্র ভালোভাবে গুছিয়ে রাখা এবং বড়দের আদেশক্রমে সেগুলো ফাইল এক স্থান থেকে অন্য স্থানে নিয়ে যাওয়া নিয়ে আসা। 
  • অফিসে চাকরিরত অন্যান্যদের জন্য পানি এবং চা নাস্তা সরবরাহ করা।
  • অফিস টাইম শুরু হওয়ার কমপক্ষে ১৫ বা ৩০ মিনিট আগে আসা।
  • কর্তৃপক্ষের আদেশক্রমে গুরুত্বপূর্ণ ফাইল এক অফিস থেকে অন্য অফিসে আনা নেওয়া করা।
  • অফিসের সেবা নিতে আসা ব্যক্তিদের সাথে ভালো আচরণ করা।
  • অফিস সহায়ক অনুমতি ছাড়া অফিস ত্যাগ করতে পারবে না। 

আরো পড়ুন: গ্রামীণ ব্যাংকের কার্যাবলি - গ্রামীণ ব্যাংকের ম্যানেজারের বেতন কত

এছাড়া অফিসের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা দের অনুমতি বা আদেশক্রমে সকল ধরনের কাজ করতে হবে। এগুলোই মূলত একজন অফিস সহায়ক এর কাজ। তবে বিভিন্ন রকম অফিস ভেদে কাজ কিছুটা ভিন্ন ভিন্ন হতে পারে। 

অফিস সহায়ক এর বেতন কত

একজন অফিস সহায়কের বেতন অফিস ভেদে এবং যোগ্যতা অনুযায়ী কম বেশি হয়ে থাকে তবে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে প্রথম অবস্থায় একজন অফিস সহায়ক এর বেতন সর্বনিম্ন ৮০০০ টাকা থেকে শুরু হয়ে থাকে। এবং একপর্যায়ে গিয়ে সর্বোচ্চ ২০ হাজার টাকা পর্যন্ত হয়ে থাকে। মোটকথা একজন অফিস সহায়ক এর বেতন সর্বনিম্ন ৮ হাজার এবং সর্বোচ্চ ২০ হাজার এর মধ্যেই থাকে। তবে অফিস সহায়ক থেকে পদোন্নতি পেলে বেতন আরো বেশি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। 

পল্লী সঞ্চয় ব্যাংক অফিস সহায়ক এর কাজ কি

পল্লী সঞ্চয় ব্যাংক অফিস সহায়ক এর কাজ কি? অনেকেই জানতে চেয়ে থাকেন। আসলে এখানেও তেমন কঠিন কোন কাজ নেই। পল্লী সঞ্চয় ব্যাংক অফিস সহায়ক এর কাজ গুলো হলোঃ 

  • অফিস টাইম শুরু হওয়ার ১৫ মিনিট আগে অফিসে এসে পৌঁছানো।
  • অফিসের যত ফাইল রয়েছে সেগুলো একটি নির্দিষ্ট জায়গায় ভালোভাবে গুছিয়ে রাখা।
  • অফিস পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করা যদি ঝাড়ু দেওয়ার প্রয়োজন হয় তাহলে ঝাড়ু দেওয়া।
  • অন্যান্য অফিস স্টাফদের জন্য পানি এবং চা নাস্তা নিয়ে আসা।

এক কথায় বলতে গেলে সকল অফিস স্টাফদের যত সাহায্য বা সহযোগিতা লাগে সেগুলো করাই অফিস সহায়ক এর কাজ। 

অফিস সহায়ক এর সুযোগ সুবিধা

একজন অফিস সহায়কের পেনশনের পাশাপাশি বিভিন্ন রকম সুযোগ সুবিধা থাকে। এবং এই সকল সুযোগ-সুবিধা তারা প্রতিনিয়ত পেতে থাকে। একজন অফিস সহায়ক এর সুযোগ সুবিধা গুলো হলোঃ 

  • ১০০০ টাকা শিক্ষা ভাতা পেয়ে থাকে।
  • বাড়ি বা রুম ভাড়া বাবদ বেতনের ৬৫% ভাতা প্রদান করা হয়ে থাকে।
  • যাতায়াত ভাড়া বাবদ ৩০০ টাকা দেওয়া হয়।
  • মাসিক চিকিৎসা ভাতা ১৫০০ টাকা দেওয়া হয়।
  • মাসিক টিফিন ভাতা বাবদ ২০০ টাকা দেওয়া হয়।
  • এছাড়া অন্যান্য এবং ধোলাই ভাতা বাবদ ১০০ টাকা দেওয়া হয়। 

স্কুলের অফিস সহায়ক এর কাজ কি

সকল অফিস সহায়ক এর কাজগুলো প্রায় একই হয়ে থাকে। এবার আপনারা জানতে চেয়েছেন স্কুলের অফিস সহায়ক এর কাজ কি? যথারীতি স্কুলের অফিস সহায়ক এর কাজগুলো হলোঃ

  • প্রতিদিন সকালে সকল শিক্ষকের আগে স্কুলের আসা এবং স্কুল পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করে রাখা।
  • স্কুলের সকল রুম ছাত্রছাত্রী আসার আগে খুলে দেওয়া।
  • স্কুলে এসে প্রতিদিন পতাকা টাঙ্গানো।
  • স্কুলের শিক্ষকদের পানি এবং চা বিস্কুট এনে দেওয়া।
  • স্কুলের সকল ধরনের ফাইল এবং ডকুমেন্ট পত্র ভালোভাবে গুছিয়ে রাখা।
  • অফিসের মধ্যে থাকা আসবাবপত্র পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখা।
  • স্কুল ছুটি হওয়ার পরে ক্লাস রুমের সকল দরজা জানালা বন্ধ করে দেওয়া। 

এগুলোই মূলত একজন স্কুল অফিস সহায়ক এর কাজ। এছাড়াও শিক্ষকদের আদেশ অনুযায়ী আরো বিভিন্ন রকম কাজ থাকতে পারে সেগুলো করতে হয়। 

অফিস সহায়ক এর ইংরেজি

অনেকে অফিস সহায়ক পদে যোগদান করতে চাচ্ছেন কিন্তু অফিস সহায়ক এর ইংরেজি জানা নেই।এছাড়াও সাধারন অনেকেই অফিস সহায়ক এর ইংরেজি জানতে চেয়ে থাকে অফিস সহায়ক এর ইংরেজি হলো Office Assistant. আশা করছি এখন থেকে আপনাদের অফিস সহায়ক এর ইংরেজি মনে থাকবে এবং যে কেউ ধরলে বা প্রশ্ন করলে খুব সহজেই বলে দিতে পারবেন। 

আমাদের শেষ কথা

তো প্রিয় বন্ধুরা আশা করছি আজকের আর্টিকেল থেকে আপনারা অফিস সহায়ক এর পদোন্নতি অফিস সহায়ক এর পেনশন কত অফিস সহায়ক এর বেতন কত পল্লী সঞ্চয় ব্যাংক অফিস সহায়ক এর কাজ কি অফিস সহায়ক এর সুযোগ সুবিধা স্কুলের অফিস সহায়ক এর কাজ কি এবং অফিস সহায়ক এর ইংরেজি কি এই সকল বিষয়ে ভালোভাবে জানতে পেরেছেন। 

আরো পড়ুন: রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের কাব্যগ্রন্থ গুলো কি কি - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের উপন্যাসের নাম

তারপরও যদি আপনাদের এই বিষয়ে কোন ধরনের প্রশ্ন বা মতামত থাকে তাহলে কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করে আমাদের জানাতে পারেন। এছাড়াও এরকম আরো নতুন নতুন তথ্য পেতে আমাদের JONOPRIYO BLOG ওয়েবসাইট নিয়মিত ভিজিট করতে পারেন সবাই ভাল থাকবেন ধন্যবাদ। 

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন